প্রফেশনাল গ্রাফিক ডিজাইনারদের পছন্দের দশটি ফন্ট - প্রিয়লেখা

প্রফেশনাল গ্রাফিক ডিজাইনারদের পছন্দের দশটি ফন্ট

Afreen Houqe
Published: May 31, 2020

প্রফেশনাল গ্রাফিক ডিজাইনারদের পছন্দের দশটি ফন্ট

গ্রাফিক ডিজাইনটি শুধু ডকুমেন্ট , একটি ওয়েবসাইট বা প্রচার এবং বিপণনের জন্য কোনও বিষয়কে সুন্দর করার মধ্যে সীমাবদ্ধ ছিল একসময়। তবে ওয়েব এবং মোবাইল প্রযুক্তির অগ্রগতি গ্রাহক দর্শকের কাছে প্রোডাক্টিভ মেসেজ যোগাযোগের জন্য একটি অতি প্রয়োজনীয় টুল তৈরি করেছে। ব্যানার, লোগো ডিজাইন, স্লোগান, কোনও অনলাইন স্টোরের ফ্রন্ট, ফ্লায়ার, ব্রোশিওর বা এমন সব কিছু অন্তর্ভুক্ত করতে পারে যা কোনও একটি আইডিয়া দিয়ে শুরু হয় এবং শিল্পকর্ম, জ্যামিতিক আকার, চিহ্ন, এবং ফন্টগুলিতে প্রসারিত করে সেটির সৌন্দর্য কে আরও বাড়িয়ে তোলে, এমনকি আকর্ষণীয় করবার কাজটিও করে থাকে।

বিভিন্ন বিষয় এর মধ্যে, ফন্ট গ্রাফিক ডিজাইনে একটি উল্লেখযোগ্য ভূমিকা পেয়েছে কারণ এটি সম্পূর্ণ  কম্পজিশন এর পক্ষে কথা বলে থাকে । সে কারণেই ডিজাইনাররা উপযুক্ত আকার এবং বিন্যাস শৈলীর সাথে নিখুঁত ধরনের ফন্ট ব্যবহার করার গুরুত্ব জানে।প্রজেক্ট পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে পর্যালোচনা করে এবং প্রথম ড্রাফট পরিকল্পনা করার পরে ডিজাইনাররা নির্দিষ্ট ফন্টের ধরণের ব্যবহারের জন্য টাইপোগ্রাফি নিয়মের একটি সেট স্বতন্ত্রতার মাধ্যমে সংজ্ঞায়িত করেছেন।

এই পোস্টে, আমি কোনও ফন্ট নির্বাচন করার সময়, বিবেচনা করার জন্য প্রফেশনাল গ্রাফিক ডিজাইনারদের ব্যবহৃত শীর্ষ দশটি ফন্ট নিয়ে আলোচনা করার এবং বিভিন্ন বিষয় নিয়ে বিস্তারিতভাবে বলার চেষ্টা করেছি।

আধুনিক প্রযুক্তি প্রসারের পূর্বে, ডিজাইনাররা সুচারু হস্তাক্ষরশিল্পে পারদর্শী ছিলেন। তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাতেই  আজকের ডিজাইনাররা রেট্রো স্টাইলের অসাধারণ কিছু টাইপফেস তৈরি করে থাকেন।

সোস্যাল মিডিয়া হোক কিংবা কাজের প্রয়োজনে, সম্প্রতি বিভিন্ন ডিজাইনের ফন্টের ব্যবহার ও গ্রহণযোগ্যতা ব্যপকহারে বৃদ্ধি পেয়েছে। সেই প্রয়োজনকে মাথায় রেখে আজ আমরা এমন দশটি ফন্টের তালিকা নিয়ে আলোচনা করছি, যেসব ফন্ট গুলো নিয়ে আপনি খুব সহজেই কাজ করতে পারবেন, নতুনত্ব যোগ করে আকর্ষণীয় করে তুলতে পারবেন আপনার কাজ।

গ্রাফিক ডিজাইনারদের জন্য ছবি ও ইমেজ ছাড়াও আরও অনেক রকমের রিসোর্সের প্রয়োজন হয়। বিভিন্ন কাজের জন্য বিভিন্ন ধরনের রিসোর্সের প্রয়োজন পরে। হতে পারে সেটা ফন্ট, ফ্রি স্টক ইমেজ ফটোগ্রাফি বা ফ্রি টেক্সচার। আধুনিক যু‌গে, ডি‌জিটাল টাই‌পোগ্রা‌ফির আবির্ভা‌বে ফন্ট অনেকটাই টাইপ‌ফে‌সের সমার্থক।

 

প্র‌তি‌টি স্টাইল ভিন্ন ভিন্ন ‘ফন্ট ফাইলে’ থা‌কে।  উদাহরণস্বরূপ, বুলমার “স্যারিফ”, “স্যান স্যারিফ”, ” ইটালিক বোল্ড‌কে” অন্তর্ভূক্ত কর‌তে পা‌রে ‌কিন্তু ফন্ট শব্দ‌টি হয়  শুধুমাত্র এক‌টির উপর অথবা সম্পূর্ণ টাইপ‌ফে‌সের উপর প্র‌য়োগ করা যে‌তে পা‌রে।

উভয়  অক্ষরস্থাপনা এবং আধু‌নিক ব্যবহা‌রে ফন্ট শব্দ‌টি টাইপফে‌সের ডিজাইনে মুক্ত পদ্ধ‌তি‌কে নি‌র্দেশ ক‌রে থাকে। আদিম ঐতিজ্যবাহি অক্ষরস্থাপনায় ফন্ট কেবল ধাতু বা কাঠ দি‌য়ে তৈ‌রি করা হ‌তো। কিন্তু আজ‌কের সময়ে ফন্ট ডি‌জিটাল ফাইলে বিসৃত ।

 

আপনার প্রজেক্টের  জন্য কোন ফন্টের প্রয়োজন সেটি কীভাবে নির্বাচন করবেন?

একজন ডিজাইনার একাধিক অবজেক্টকে একত্রিত করে প্রডাক্টের আসল বার্তাটি তুলে আনার চেষ্টা করেন ।

 

কালার, ইমেজ এবং অন্যান্য ভিজ্যুয়াল অবজেক্টের সাহায্যে, তিনি সে উজ্জ্বলতার সাথে একটি ডিজাইন করেন যার উদ্দেশ্য তার প্রডাক্টের অর্থটির সাথে গ্রাহক দর্শকদের যোগাযোগ স্থাপন করা। এটি অনেকটা একটি বিশাল রচনাকে সারমর্মে রূপান্তর করা খুব সীমিত বা অল্প ভাষায়।

 

গ্রাফিক্সের মাধ্যমে কেউ একটি ভিজ্যুয়াল কনটেক্সট তৈরি করতে পারে তবে ফন্টে অনুপস্থিত থাকলে আপনি যা দেখাতে বা করতে চান তা অবিকল ফুটে নাও উঠতে পারে, এটি একটি গুরুত্বপূর্ণ ভুল হতে পারে আপনার জন্য।

 

নিখুত ফন্ট নির্বাচন কোনও নকশায় বুদ্ধিমানভাবে দেখানোর সাথে সাথে একটি অক্ষর যুক্ত করার মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয় এটি খেয়াল রাখবেন।

 

আপনার নতুন প্রজেক্ট এর জন্য আপনাকে সঠিক ধরণের ফন্টটি দ্রুত নির্বাচন করতে সহায়তা করতে নীচে কয়েকটি মূল্যবান টিপস জানিয়ে দিচ্ছি ।

১/  নিশ্চিত করুন যে ফন্টটি সুস্পষ্ট

সুস্পষ্ট এখানে অর্থ পরিষ্কার, পরিষ্কার এবং পাঠযোগ্য। আপনাকে ফন্টের ধরণটি নির্বাচন করতে হবে যা ভালভাবে ডেভেলপড এবং প্রতিটি অক্ষর ছোট আকারে, বোল্ড বা ইটালিক হলেও যেন সেটি বোঝা যায়। অস্পষ্ট হয়ে যাওয়া বা অক্ষরগুলি খুব এলোমেলো অগোছালো হলে ব্যবহার এড়িয়ে চলুন।

 

২/  সেরিফ অথবা সানস-সেরিফ?

নির্দিষ্ট ডিজাইনের জন্য আরও ভাল ফন্টের ব্যবহার সম্পর্কে জানুন।

সেরিফ ফন্টগুলি হল প্রতিটি অক্ষরের শেষে লাইনযুক্ত ।

ফন্টটি ট্র্যাডিশনাল বা গুরুতপুরন  উদ্দেশ্যেই ব্যবহার উপযুক্ত।

অন্যদিকে, একটি সানস-সরিফ ফন্টে অতিরিক্ত লাইন নেই।

একারণে আধুনিক ডিজাইনের জন্য এই ফন্ট আদর্শ হিসাবে বিবেচিত হয়। আর এই বিষয়টি মাথায় রেখে নতুন এবং আধুনিক ফন্ট গুলো কি কি সেটি জানার চেষ্টা করুন।

 

৩/ কনটেক্সট এবং শ্রোতার বিষয়টি বিবেচনায় রাখুন

আপনার প্রস্তাবিত ডিজাইনের কনটেক্সট এবং শ্রোতাদের বিষয়ে বিবেচনা করুন।

কীভাবে এবং কোথায় ক্লায়েন্ট গ্রাফিক ডিসপ্লে করতে চাইছে তা জানুন।

একজন সাধারণ ব্যবহারকারী কিভাবে ডিজাইনটি দেখে এবং পড়তে পারে তা বুঝতে, এটি থেকে আপনি একটি ভালো ধারনাও নিতে পারবেন।

 

৪/  একাধিক ফন্ট একসাথে করে তুলনা করুন

বিভিন্ন ফন্টের ধরন সংক্ষিপ্ত করা কঠিন, এজন্য ফন্টের একটি সেট একত্রিত করার কাজটি করতে হবে এমন ভাবে যাতে আপনার সময় বাঁচে অন্যদিকে কাজটি সহজ হয়, আপনার ডিজাইনে ফন্ট ব্যবহার করে এক নজরে তুলনা করতে পারলে আপনার জটিলতা কমে যাবে।

 

যেগুলো বেশি আকর্ষণীয় তা নির্বাচন করা সময়ের ব্যপার মাত্র।

প্রফেশনাল ডিজাইনারদের পছন্দের দশটি ফন্ট

পেশাদার গ্রাফিক ডিজাইনারদের এমন বিভিন্ন সংস্থার জন্য ডিজাইনের শিল্প সমৃদ্ধ কাজ করবার অভিজ্ঞতা রয়েছে।  এটি কেবলমাত্র ব্যবসায়িক কারণেই করা হয়না, এই কাজটি করা হয় কাজের ভ্যারিয়েশনে নিজের দক্ষতা বাড়ানোর জন্য।

 

সময়ের সাথে সাথে, তারা বিভিন্ন ফন্ট ব্যবহারে দক্ষতা অর্জন  করে থাকেন ।

তাদের ফন্টের পছন্দ বাজারে তাদের দক্ষতার সফলতা জানায়। যারা প্রাথমিকভাবে শিখতে শুরু করেছেন তাদের  জন্য প্রচুর সাহায্য করবে বলে আশা করি।

নীচে শীর্ষ দশটি ফন্টের বিস্তারিত আছে, আপনারা যারা গ্রাফিক ডিজাইনে তাদের ক্যারিয়ার গড়ার কথা ভাবছেন তারা এই ফন্টগুলো নিয়ে কাজ শুরু করে দেখতে পারেন। আর এসবকটি ফন্টই প্রফেশনাল ডিজাইনারদের পছন্দের তালিকায় আছে।

হেলভেটিকা  (Helvatica)

 

গ্রাফিক ডিজাইনারদের ফন্ট ব্যবহারের তালিকায় হেলভেটিকা হল বহুল ব্যবহৃত ফন্টগুলির মধ্যে অন্যতম, পেশাদার বা মাঝারি থেকে সিনিয়র ডিজাইনাররা  এই ফন্ট নিয়ে কাজ করছেন। এই ফন্টটির তুলনামূলকভাবে প্রফেশনালদের মধ্যে কিছুটা মত পার্থক্য রয়েছে কারণ তাদের মধ্যে কেউ কেউ এর অনন্য সাধারণ প্রদর্শনের জন্য প্রশংসা করেন, অন্যদিকে কেউ কেউ যুক্তি দিয়ে থাকেন যে স্পেসিং এর মধ্যে অক্ষরের ব্যবধান জটিল মনে হয়। হেলভেটিকা ফন্ট ব্যবহার করে আপনি বলতে চান ,” আমি তোমাকে ভালবাসি “। আপনি অভিনব কায়দায় বলতে চাইলে হেলভেটিকা এক্সট্রা লাইট ব্যবহার করতে পারেন  । অথবা আপনি অতিরিক্ত বোল্ড দিয়েও এটি বলতে পারেন এটি ইনটেন্সিভ এবং প্যাশেনেট দেখাবে।

 

-ম্যাসিমো ভিগনেলি

“এটি ডিজাইনারদের মধ্যে বৈশিষ্ট্যগত পার্থক্যের কারণে হতে পারে। প্রফেশনাল টাইপোগ্রাফারদের প্রতিটি খুঁটিনাটি বিষয়ে নজর থাকে; এজন্য তারা কোনও প্রজেক্ট এর সুযোগ এবং উদ্দেশ্য অনুযায়ী ফন্টগুলি লিস্টে রাখেন এবং ব্যবহার করেন।“

গারামন্ড (Garamond)

 

গারামন্ড প্রফেশনাল ফন্ট গ্রাফিক ডিজাইনারদের সম্প্রদায় বিভিন্ন ভ্যারিয়েশন নিয়ে কাজ করে থাকে  ।পেশাদাররা অ্যাডোব গারামন্ড সংশোধন ছাড়াও বাকি সংস্করণগুলিও সমান ভাবে পছন্দ করে। এটি ১৯৮৯ সালে প্রকাশিত হলেও এখনো পর্যন্ত  এটি ব্যবহার হয়ে আসছে সমান ভাবে । এর বোল্ড এবং সাবটেল স্টাইল এটিকে ওয়েবসাইট, পাঠ্যপুস্তক, ম্যাগাজিন এবং শিক্ষাগত উদ্দেশ্যে ব্যবহৃত অন্যান্য মাধ্যমগুলি ডিজাইনের জন্য উপযুক্ত ম্যাচে পরিণত করেছে লম্বা সময় ধরে। ফন্ট ইন্ডাস্ট্রিতে  জনপ্রিয় হওয়ায় এটি জার্মানির একটি প্রকাশনা সংস্থা দ্বারা দ্বিতীয় সেরা ফন্টের তালিকায় রয়েছে। একই সময়ে, হেলভেটিকা ফন্ট রয়েছে তালিকার প্রথম স্থানে ।

ট্রাজান (Trajan)

 

ট্রাজান বিভিন্ন ধরণের ফন্টের মধ্যে একটি কর্তৃত্ববাদী ব্যক্তিত্বকে উপস্থাপন করে। আর এর কারণ এটি হলিউডের অনেক মুভি পোস্টারের সৌন্দর্য। ফন্টটি একবার দেখুন, আপনি অনুভব করবেন এটি আপনাকে অতীতের প্রিয় কোন একটি চলচ্চিত্রের কথা মনে করিয়ে দিতে পারে। ট্রাজানের বিস্তৃ ব্যবহার উদাহরণস্বরূপ, যে শীর্ষস্থানীয় যারা প্রফেশনাল এবং চলচ্চিত্র নির্মাণের শিল্পে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছেন তাদের দ্বারা এটি সুপারিশ করা হয়। অন্যদিকে, এই ফন্টটির একটি প্রতীকী অস্তিত্ব রয়েছে যা আইন, ধর্ম, বিবাহ বা সমাজের সাথেও  সম্পর্কিত। যখনই পেশাদার কেউ এ জাতীয় দিকটি জানেন  তখন তারা এই ফন্টটির ব্যবহার বাধ্যতামূলক বলে মনে করেন।

“ট্রাজানের ডিজাইন করার সময়, ক্যারল টম্বল্লি প্রথম শতাব্দীর সময় রোমানদের দ্বারা এতটাই প্রভাবিত ছিলেন যে তিনি  খোদাই করা চিঠির স্টাইল গুলো নিয়ে কাজ করার কথা ভাবতেন। আর একারণেই তিনি তার ডিজাইনগুলোতে  সংখ্যা এবং বিরামচিহ্ন যুক্ত করে, পাশাপাশি পাঠযোগ্য করে তোলার দিকেও   গুরুত্ব দেওয়ার জন্য আরও পদক্ষেপ নেন। সবচেয়ে বড় কথা, প্রাচীন রীতির সাথে তার সংস্কার এর ফলে একটি ফন্ট পরিবার তৈরি হয়েছিল যার স্পষ্টতা এবং সৌন্দর্য আধুনিক মুদ্রিত ম্যাটেরিয়াল গুলোতে ফুটে আসে ”

ফুটুরা  (Futura)

 

যখন কোনও সীমাবদ্ধ জায়গায় সর্বাধিক এবং সঠিক ব্যবহার করার ইচ্ছা রয়েছে ঠিক সেখানেই ফুটুরা ডিজাইনারের প্রয়োজনীয়তা পূরণ করে থাকে । এই ফন্টের ধরনটি লোগো ডিজাইন করার জন্য ব্যবহৃত হয়ে থাকে, প্রোডাক্ট স্লোগান যুক্ত করার জন্য, বই টাইপ করার জন্য, বা কর্পোরেট টাইপফেসগুলি তৈরি করার জন্য একটি সঠিক ফন্ট। ফন্টটির একটি জিওম্যাট্রিক ভিত্তি রয়েছে যার কারণে আপনি বুঝতে  পারবেন, জিওম্যাট্রিক শেপ ব্যবহার করে কিভাবে একটি টেক্সট কে সুন্দর ভাবে উপস্থাপন করতে হয়। যদিও অন্য ফন্টের মতো, কিছু মানুষ ফুতুরা টাইপফেসে ব্যবহার করেন না। তবুও, পরিষ্কার এবং স্বচ্ছ ডিজাইন এর কারণে, বেশিরভাগ ডিজাইনার এটিকে এফিশিয়েন্ট ফন্ট হিসাবে বিবেচনা করে থাকেন।

বিকহাম স্ক্রিপ্ট প্রো  (Bickham Script pro)

 

লেখাকে মাস্টার আর্ট হিসাবে অনুকরণের তাগিদ দিয়ে বিকহাম স্ক্রিপ্ট প্রো তৈরি করা হয়েছিল। এটি ঘরে বসে ব্যবহারের জন্য ১৯৮৯ সালে অ্যাডোব দ্বারা প্রোগ্রাম করা হয়েছিল তবে আকর্ষণীয় স্টাইলগুলি শিল্পের সহযোগী ডিজাইনারদের মধ্যে খুব শীঘ্রই ছড়িয়ে পড়ে। এই অনন্য এবং ম্যাচলেস টাইপফেসটি আনুষ্ঠানিক অনুষ্ঠানের ভিজ্যুয়াল তৈরি করতে ব্যবহৃত হয়। এটি ক্রিয়েটিভ ডিজাইনের ক্ষেত্রে পুরোপুরি দৃষ্টিনন্দন কাজ করে। বিকহাম স্ক্রিপ্ট প্রো-এর সিমপ্লিসিটি এবং এপেলিং কাঠামোর জন্য  ক্যামেরুন মোলের প্রশংসা পায় যার একটি আর্টিক্যাল রয়েছে ।

 

বোডোনি (Bodoni)

 

বোডনি ফন্ট ডিজাইন। বোডোনি ডিজাইনার এবং শিল্পীদের তাদের সৃজনশীলতাকে মাস্টারপিসে হিসেবে উপস্থাপন করার একটি সমৃদ্ধ ইতিহাস রয়েছে। ফন্টটি সহজেই চিহ্নিতযোগ্য টাইপফেসের জন্য বিখ্যাত যা লোগো, আলংকারিক পাঠ্য এবং শিরোনাম তৈরির কাজে ব্যবহার করতে দেখা যায়, এবং ফ্যাশন শিল্পের ডিজাইনারদের কাজে ব্যবহৃত হয় এই ফন্ট সর্বাধিক ভাবে।

– গিয়াম্বাত্তিস্তা বোডোনি

” অস্বস্তি এবং অনীহার সাথে লেখা চিঠি কেবল পরিশ্রম বা সময় নষ্ট করে, কিন্তু যখন সেগুলি প্রেম এবং আবেগের সাথে লেখা হয় তখন অক্ষরগুলি তাদের খাঁটি আনন্দ, এবং আসল পরিচয় পায় ।” পাতলা স্ট্রোকের উজ্জ্বল সংমিশ্রণ ফন্টকে নান্দনিকভাবে আকর্ষণীয় এবং মন্ত্রমুগ্ধ করে তোলে। আর, জিওম্যাত্রিক আকারের একটি স্পর্শ ফন্ট গুলোয় যোগ করে ভিন্ন মাত্রা।

ফ্রুটিগার (Frutiger)

 

 

ফ্রুটিগার হ’ল একটি সম্পূর্ণ ফন্ট ফ্যামিলি যা সুইজারল্যান্ডের বিখ্যাত ডিজাইনার অ্যাড্রিয়ান ফ্রুটগার তৈরি করেছিলেন। এই টাইপফেসটিকে ‘হিউমানিস্ট’ হিসাবে আখ্যায়িত করা হয়েছে কারণ ফন্টের প্রতিটি চরিত্রই স্পষ্টতা এবং পঠনযোগ্যতার উপর ফোকাস দিয়ে থাকে। ডিজাইনাররা এটি আকর্ষণীয় বলে মনে করেন  তার  কারণ প্রতিটি অক্ষর স্বল্প আকারে টাইপ করা যায় বা দূর থেকে দেখা যায়। প্রফেশনাল  যে কোন ডিজাইনার এই ফন্ট ব্যবহার করে বিভিন্ন সুবিধা যুক্ত করতে পারবেন। বলতে গেলে, ফন্টটি ডিসপ্লে ওয়ার্ক এবং সিগনেজ ডিজাইনে এই ফন্ট খুবই গুরুতপুরন বলে প্রমাণিত হয়েছে,  এবং ওয়েব ২.০ প্ল্যাটফর্মের জন্য লোগো তৈরিতে বেশ জনপ্রিয় এই ফন্ট।

 

গোথাম (gotham)

পেশাদার ডিজাইনার ফ্রেয়ার-জোনস এবং হোফ্লার ২০০০ সালে প্রবর্তন করেছিলেন এই ফন্ট। তারা এমন ধরণের ডিজাইন ফলো করেছিলেন যা পরিষ্কার, আধুনিক এবং পেশাদার। মোট কথা, তারা সাফল্যের সাথে গোথাম ফন্টের আকারে তাদের দক্ষতা দেখাতে পেরেছেন । আর এই কারণে এটি তের বছরেরও বেশি সময় ধরে ইন্ডাস্ট্রিতে একটি প্রিয় টাইপফেস হিসাবে শাসন করে যাচ্ছে । অবশ্য গুঞ্জন ছিল যে গোথাম ফন্ট রাষ্ট্রপতি ওবামার একটি প্রিয় ফন্ট এবং তিনি এটি ২০০৮ সালে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে পোষ্টার ও ফ্লাইয়ারদের জন্য একচেটিয়াভাবে ব্যবহার করেছেন।

গুজবটি সত্য বা মিথ্যা হতে পারে, তবে গোথামের খ্যাতি আসলেই সত্য।

 

 ক্যাসলন (Caslon)

 

বিশিষ্ট ডিজাইনার উইলিয়াম ক্যাসলনের নামে নামকরণ করা হয়েছে এই ফন্টটি, যিনি বেশ কয়েকটি সেরিফ টাইপফেস তৈরি করেছেন এবং ফন্টের একটি সম্পূর্ণ পরিবার গঠনে এটিকে প্রসারিত করেছেন। এই কারণেই ক্যাসলন ফন্টটি একাধিক সংস্করণে সহজেই পাওয়া যায়। এটি ডিজাইন সম্প্রদায়ের অবিচ্ছিন্ন প্রচেষ্টা যে আজ আমাদের কাছে ক্যাসলনের মতো সুন্দর ফন্টগুলির একটি সেট রয়েছে যা বডি কন্টেন্ট ডিজাইনের জন্য উপযুক্ত বলে বিবেচিত হয়। কর্পোরেট টাইপফেস হওয়ার পাশাপাশি, আমরা অনলাইন অফলাইনে প্রচুর বই, জার্নাল এবং ম্যাগাজিনে ক্যাসলনের ব্যবহারিক নিদর্শনগুলি দেখে থাকি। বিভিন্ন রিভাইবড ভার্শন এর মধ্যে, অ্যাডোব ক্যাসলন এবং অ্যাডোব ক্যাসলন প্রো যথেষ্ট পরিমাণে খ্যাতি এবং লাইমলাইট পেয়েছে।

 

রকওয়েল (Rockwell)

 

মনোটাইপ কর্পোরেশনের একটি প্রোডাক্ট যা ১৯৩৪ সালে এটি আবার মুক্তি পেয়েছিল। ফন্টটি ছোট আকার বা ডিসপ্লে ডিজাইনের জন্য ব্যবহার করা হলে সহজেই চিহ্নিতযোগ্য হিসাবে পরিচিত। স্ল্যাব সেরিফ ক্যাটাগরি  করার পর লক্ষ্য করা হয়, মনো-ওয়েট ডিজাইনের বৈশিষ্ট্যটি হোৱাইজনটাল স্ট্রোকের অনুরূপ কাজ করে থাকে। এই ফন্টের ডিজাইন জ্যামিতিক আকার থেকে নেওয়া হয়েছে। এটি প্রোডাক্ট ভ্যালু এবং চার্ম যোগ করার জন্য ব্যবহৃত হয় বেশিরভাগ ক্ষেত্রে। রকওয়েলের একটি বিলাসবহুল ডিজাইন রয়েছে যা মান অটুট রাখার সাথে ডিজাইনারের বেশিরভাগ চাহিদা পূরণ করতে সক্ষম।

 

ভাবনা

ডিজাইনারদের তাদের পছন্দের শীর্ষ দশটি ফন্টের একটি বিচিত্র তালিকা রয়েছে।

যারা ব্যবসায়িক বা অব্যাবসায়িক প্রয়োজনীয়তা মেটাতে কিংবা শেখার জন্য ফন্ট নিয়ে কাজ করতে চান। তারা এই প্রয়োজন মেটাতে উল্লেখিত ফন্টগুলো নিয়ে কাজ করতে পারেন।

এই দশটি ফন্ট সকল প্রফেশনাল গ্রাফিক্স ডিজাইনদের পছন্দের তালিকায় রয়েছে। যদিও আপনার পছন্দের সাথে অন্যদের পছন্দের মিল নাও থাকতে পারে তবুও প্রফেশনাল কেউ যখন তাদের লিস্টে এই ফন্টগুলো রেখেছে কাজ করেই দেখুন হয়তো আপনার তালিকাতেও চলে আসতে পারে এই ফন্টগুলো।