পলিআর্থারাইটিস-চিকুনগুনিয়া থেকে ছড়িয়ে পড়া আরেক আতঙ্ক। - প্রিয়লেখা

পলিআর্থারাইটিস-চিকুনগুনিয়া থেকে ছড়িয়ে পড়া আরেক আতঙ্ক।

Priyolekha
Published: July 28, 2017

অতি সম্প্রতি  মাঝে আতঙ্কের মত ছড়িয়ে পড়েছে চিকুন গুনিয়া নামক ভাইরাস জ্বর। এডিস নামক  স্ত্রী মশা দ্বারা অনেক দ্রুত ভাইরাসটি মশা থেকে মানুষ আর মানুষ থেকে মশার কাছে ছড়ায়। আইইডিসিআর (রোগতত্ব ও রোগ নিয়ন্ত্রন ও গবেষনা ইন্সটিটিউট) এর জরিপ অনুযায়ী ২০০৮ সালে সর্বপ্রথম  বাংলাদেশের রাজশাহী ও চাঁপাই নবাবগঞ্জ জেলায় চিকুনগুনিয়া আক্রান্ত রোগী পাওয়া যায়। তার পর থেকে বাংলাদেশে মহামারি আকারে দেখা না দিলেও ২০১৭ সালে বেশ আতঙ্কের সৃষ্টি করেছে চিকুনগুনিয়া ভাইরাস জ্বর।

চিকুনগুনিয়া ভাইরাস শুধু তীব্র জ্বর আর শরীর ব্যথা দিয়ে ক্ষান্ত হয়নি নতুন গবেষনা অনুযায়ী চিকুনগুনিয়া ভাইরাস জ্বরে আক্রান্ত ব্যাক্তি  পলিআর্থারাইটিস নামক একধরনের আর্থারাইটিস রোগে আক্রান্ত হতে দেখা যাচ্ছে ।

চিকুনগুনিয়া কি?

চিকুনগুনিয়ার জন্য দায়ী ডেঙ্গুর বাহক এডিস মশা। তবে এটি ডেঙ্গুর মতো ভয়ানক নয়।তাই এই জ্বর থেকে বাঁচতে সচেতনতা ও সতর্কতা প্রয়োজন। চিকুনগুনিয়া নামে ভাইরাসজনিত রোগটি মশার কামড়ের মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ছে।

এ জ্বরের তীব্রতা অনেক বেশি যা ১০৩-১০৪ ডিগ্রী পর্যন্ত উঠতে পারে। প্রচন্ড জ্বরের সাথে শরীরের অস্থি ব্যথা , শারীরিক দূর্বলতা ও বমি বমি ভাব হতে পারে।

অতি সম্প্রতি জানা গেছে চিকুনগুনিয়ার অস্থি ব্যথা থেকে পলি আর্থারাইটিস নামক অস্থি সন্ধির রোগের সংক্রমন হচ্ছে।আমাদের প্রথমে জানতে হবে আর্থারাইটিস বিষয়টি কি?

আর্থারাইটিস কি?

মানুষের শরীরের বিভিন্ন জোড়ায় অস্থি সন্ধিতে  বিভিন্ন রোগের সমন্বয়কে আমরা আর্থারাইটিস বলে থাকি। মূলত  আর্থারাইটিস বা বাত একক কোন রোগ নয় অনেক রোগের সমন্বয়। আসুন তবে জেনে নেই আর্থারাটিসের লক্ষনসমূহ-

  • অস্থি সন্ধিতে ব্যথা সাথে ফুলে যেতে পারে।
  • অস্থি সন্ধির চারপাশে স্থায়ী যন্ত্রনা হতে পারে।
  • খাদ্যে অরুচি যার ফলশ্রুতিতে ওজন কমে যায়।
  • শারীরিক দূর্বলতার কারনে বিভিন্ন রোগ আক্রমন করে।
  • হালকা জ্বর থাকতে পারে।

আমরা জেনে নিলাম আর্থারাইটিসের লক্ষন সমূহ ।এখন জেনে নেই পলিআর্থারাইটিস কি?

পলি আর্থারাইটিস

পলিআর্থারাইটিসও একধরনের আর্থারাইটিস। তবে যদি একসাথে শরীরের ৫ বা এর অধিক অস্থি সন্ধিতে একসাথে ব্যথা হলে চিকিৎসাবিজ্ঞানে তাকে পলিআর্থারাইটিস বলে।আপনার চিকুনগুনিয়া না হলেও পলিআর্থারাইটিস হতে পারে আবার চিকুনগুনিয়া হলে যে পলিআর্থারাইটিস হবেই এমন কোন তথ্য জানা যায় নি। তবে বর্তমান সময়ে চিকুনগুনিয়া খুব ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়েছে সারাদেশে আর সেই সাথে ব্যাপকভাবে পলিআর্থারাইটিস না ছড়ালেও মাঝে আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে।

পলিআর্থারাইটিসের লক্ষনঃ

  • শরীরের একাধিক অস্থি-সন্ধিতে একসাথে ব্যথা। এবং সেই ব্যথা অসহনীয় হয়ে থাকে।
  • জ্বর থাকবে।
  • ওজন আস্তে আস্তে কমতে থাকে।
  • খাদ্যে অরুচির কারনে শারীরিক দূর্বলতা বেড়ে যায়।
  • অস্থি-সন্ধি ব্যথা বেড়ে গেলে কাজে অক্ষমতা বেড়ে যায়।
  • বিশেষ করে হাতের আংগুল কর্মক্ষমতা হারিয়ে ফেলে।

পলিআর্থারাইটিসের কারণঃ

  • এটি মূলত একধরনের ভাইরাল ইনফেকশন। বিভিন্ন অস্থি সন্ধিতে ভাইরাল ইনফেকশন থাকলে পলি আর্থারাইটিস হতে পারে।
  • আপনার পূর্বের কোন আঘাত কিংবা চোট থেকে পলিআর্থারাইটিস হতে পারে।
  • স্ত্রী এডিস মশার কামড়ে শরীরে চিকুনগুনিয়া ভাইরাস আক্রমন করলে অস্থি সন্ধিতে পলি আর্থারাইটিস এর সংক্রমন হতে পারে।

কাদের হয় পলিআর্থা্রাইটিস?

এই রোগ নিদির্ষ্ট কোন বয়স মানে না। সকল বয়সের মানুষের হতে পারে এই রোগ। তবে পূর্ণ বয়স্কদের মধ্যে যারা পূর্বে খুব বেশি শারীরিক পরিশ্রম করেন তাদের হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

প্রতিকারের উপায়ঃ

অবশ্যই যতদ্রুত সম্ভব চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে এবং প্রয়োজনীয় শারীরবৃত্তীয় টেস্ট করে ভাইরাস নিশ্চিত করতে হবে।

এবং সেই অনু্যায়ী চিকিৎসকের পরামর্শ মত ঔষধ সেবন করতে হবে।

তবে ব্যথা উপশমের জন্য গরম সেঁক দিতে পারেন। ব্যথা কমানোর জন্য অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ অনু্যায়ী ব্যথানাশক ঔষুধ ,ফিজিও থেরাপি ও স্টরয়েড ব্যবহার করতে পারেন।

সকল রোগ থেকে বাচার জন্য প্রয়োজন নিজস্ব সচেতনতা ।নিজে সচেতন হন, অন্যকে সচেতন করুন। সচেতন  হতে  চোখ রাখুন প্রিয়লেখার স্বাস্থ্যবার্তায় চোখ রাখুন।