ওয়েব ডিজাইনে গ্রাহক অভিজ্ঞতা অর্জনের শীর্ষ ১০ উপায় - প্রিয়লেখা

ওয়েব ডিজাইনে গ্রাহক অভিজ্ঞতা অর্জনের শীর্ষ ১০ উপায়

Afreen Houqe
Published: September 12, 2020

ওয়েব ডিজাইনে গ্রাহক অভিজ্ঞতা অর্জনের শীর্ষ ১০ উপায়

ক্রমাগত প্রযুক্তিগত বিকাশ ৯০ এর দশক থেকে ব্যবসাটি বৈদ্যুতিন মাধ্যমের দিকে পরিচালিত করেছে। তখন থেকে এখন পর্যন্ত ইকমার্স প্রতিটি দিন উত্তীর্ণ এই হার বৃদ্ধি এবং বিকাশ অব্যাহত রেখেছে।

এটি ওয়েব ডিজাইন, ওয়েব সামগ্রী এবং পরিচালনা, ইমেল বিপণন, এসইও, অনলাইন প্রচার এবং আরও অনেক কিছুর সুযোগ ও দিকের দিকনির্দেশকে প্রশস্ত করেছে দিনে দিনে ।

ইন্টারনেট এবং প্রযুক্তির নাগাল এতটাই বিশাল আকার ধারণ করেছে যে এটি পুরোপুরি ব্যবসায়ের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ তৈরি করে। আজ, আপনার অনলাইন উপস্থিতি নিঃসন্দেহে আপনার ব্যবসা বৃদ্ধি করতে বা এমনকি বৃদ্ধি ভেঙেও দিতে পারে।

ওয়েব ডিজাইন ব্যবসায়ের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ বৈশিষ্ট্য হিসাবে আত্মপ্রকাশ করেছে এবং বিশেষত ইকমার্স শিল্পের জন্য। আপনার শ্রোতাদের বিভিন্ন আবেগকে আকৃষ্ট করে তাদের বিভিন্ন উদ্যোগ নিতে সাহায্য করার ক্ষমতা এটি রাখে নিঃসন্দেহে ।

আপনার ওয়েব ডিজাইন আপনার পেজে থাকতে পারে এবং আপনার ব্যবসা আরও ভাল জানতে এবং আপনার প্রতিযোগীদের কাছে পৌছে যেতে পারে। সুতরাং, দর্শকদের উপর স্থায়ী ছাপ রেখে এবং ব্র্যান্ডের আনুগত্য অর্জনের জন্য, আপনার ওয়েব ডিজাইনিং প্রক্রিয়াটি অবশ্যই সুচিন্তিত, যত্ন সহকারে পরিকল্পনা করা এবং আবেগের সাথে সম্পাদন করতে হবে।

গবেষণায় দেখা গেছে যে বেশিরভাগ মানুষ প্লেইন এবং সাধারণ সামগ্রীর চেয়ে সুন্দরভাবে ডিজাইন করা সামগ্রী পছন্দ করে। সুতরাং, ওয়েবসাইট তৈরি করার সময় এটি আপনার মাথায় রাখা অপরিহার্য কারণ এটি বিশ্বের কাছে আপনার ব্যবসায়ের প্রতিনিধিত্ব করে।

উচ্চ-আকর্ষক এবং আবেদনকারী ওয়েব ডিজাইন গ্রাহকদের আকর্ষণ এবং ধরে রাখতে প্রয়োজনীয়। আজ ওয়েব ডিজাইনের গুরুত্ব সম্পর্কে আরও ভাল ধারণা পেতে, আসুন আমরা এর কয়েকটি সুবিধাগুলি দেখে নিই:

একটি ভাল ইম্প্রেশনের ছাপ রাখা

গ্রাহকদের সাথে বিশ্বাস স্থাপন করা

একটি প্রতিযোগিতামূলক সুবিধা অর্জন করা

আয় বাড়ানো

উন্নত সার্চ র‌্যাঙ্কিংয়ের সুবিধা রাখা

ব্র্যান্ডের ধারাবাহিকতা তৈরি করা

 

পুরো বিশ্ব আজ ই-কমার্স ব্যবসায় আকর্ষণ বোধ করে। কোনও কোম্পানির জন্য একটি দুর্দান্ত ওয়েবসাইট থাকার ফলে বিক্রয় বৃদ্ধি এবং গ্রাহকের অভিজ্ঞতা উন্নত করা বাধ্যতামূলক হয়ে পড়েছে। সর্বোপরি, গ্রাহকরা আপনার ওয়েবসাইটটিতে আপনার দেওয়া তথ্য থেকে আপনার পরিষেবাটি জানতে পারবেন। সুতরাং, ওয়েব ডিজাইনগুলি আপনার ব্যবসাকে বোঝার জন্য এবং পাশাপাশি আপনার পরিষেবা বিপণনে উভয়ই গুরুত্বপূর্ণ।

আপনার ওয়েবসাইটের জন্য ওয়েব ডিজাইন পছন্দ করার জন্য নিম্নলিখিত বিষয়গুলো মেনে চলুন :

১ – উপস্থিতি

বেগুনি রঙের ওয়েব ডিজাইন

আকর্ষণীয় এবং আবেদনময় ওয়েব ডিজাইন আপনার দর্শকদের উপর একটি ভাল ছাপ তৈরি বাধ্যতামূলক ভাবে । ভুল বোঝাবুঝি এবং বিভ্রান্তি রোধ করতে ডিজাইনকে সহজেই বোঝা উচিত।

যদি ব্যবহারকারীরা আপনার ওয়েবসাইটকে অস্মাঞ্জস্য বা খুব বিশৃঙ্খভাবে দেখে  সেটায় বিভ্রান্ত মনে করে তখন তারা আপনার ওয়েবসাইটটি আরও দেখার বা আপনার সংস্থা সম্পর্কে জানতে আগ্রহ হারিয়ে ফেলে।

এছাড়াও, এমন রঙ নিয়ে ভাবুন যা দর্শকদের দৃষ্টি আকর্ষণ করবে। তারা ইতিবাচক এবং নেতিবাচক উভয় অনুভূতি সরিয়ে দেওয়ার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। আপনার ওয়েব পেইজের জন্য রঙের সিদ্ধান্ত নেওয়ার সময় আপনার লক্ষ্য দর্শকের বয়সের গোষ্ঠী, পছন্দ এবং আগ্রহের প্রতি মনোযোগ রেখে তৈরি করতে হবে ।

২ – দৃশ্যমানতা (ভিজিবিলিটি)

 

আপনার হোমপেজে আপনার ওয়েবসাইটের সমস্ত সমালোচনা বিশদ থাকতে হবে। এগুলি সহজে দৃশ্যমান এবং দর্শনার্থীদের কাছে অ্যাক্সেসযোগ্য হওয়া উচিত।

সহজ কথায়, আপনার অবশ্যই নিশ্চিত করতে হবে যে দর্শনার্থীরা কোনও অসুবিধায় না পরে তারা  আপনার ওয়েবসাইটে কি সন্ধান করছে তা বুঝতে পারে ।

জটিল এবং কঠিন ওয়েবসাইট ডিজাইন এড়ানো আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করার সময় অবশ্যই আবশ্যক। এটি বিভ্রান্তি রোধে এবং সামগ্রিক প্রক্রিয়াটিকে মসৃণ করতে সহায়তা করবে। তথ্যগুলির বিশৃঙ্খলা এবং একই সাথে জটিল-বর্ণনামূলক ওয়েবসাইটটি ব্যবহার করতে পছন্দ কেউ করবে না।

৩ – অ্যাক্সেসযোগ্য

এটি লক্ষ করা গুরুত্বপূর্ণ যে কোনও ওয়েবসাইট ব্যবহারকারী যত বেশি বন্ধুত্বপূর্ণ, তত ভাল গ্রাহকের অভিজ্ঞতা অর্জনে সহায়ক হয়ে থাকে ।

কোনও গ্রাহক এমন কোনও ওয়েবসাইট ঘুরে দেখতে চান না যা অ্যাক্সেস এবং ব্যবহার করা কঠিন। আপনার গ্রাহকরা যে কোনও ডিভাইস থেকে আপনার ওয়েবসাইট অ্যাক্সেস করতে পারবেন এবং যে কোনও জায়গা থেকে আপনার পরিষেবাটি ব্যবহার করতে পারবেন তাও আপনাকে নিশ্চিত করতে হবে।

এটি তাদের সুবিধাগুলি আরও বাড়িয়ে তুলতে, আপনার পরিষেবাগুলিকে আরও বেশি ব্যবহার করতে উত্সাহিত করবে। সর্বোপরি, আপনার ওয়েবসাইটের চূড়ান্ত লক্ষ্য হলো সম্পূর্ণ সহায়তা সরবরাহ করা এবং গ্রাহকদের পক্ষে এটির অ্যাক্সেস করা আরও সহজ করা।

৪ – চিত্র (ইমেজেস)

গোপ ওয়েব ডিজাইন

ইমেজগুলো এমন শক্তিশালী টুল যা দ্রুত মনোযোগ আকর্ষণ করতে এবং বার্তাগুলিকে আরও স্পষ্ট এবং তাত্ক্ষণিকভাবে দিতে পারে। আরও ভাল প্রভাবের জন্য আপনি আপনার ওয়েবসাইটের জন্য আপনার ব্যবসায়ের সাথে সম্পর্কিত ছবিগুলি ব্যবহার করতে পারেন। আসল, পেশাদার এবং সৃজনশীল ফটোগুলি নির্বাচন করা আপনার ওয়েবসাইটের ছাপকে বাড়িয়ে তুলতে পারে।

আপনি লোডের গতি সর্বাধিক করতে এবং অপেক্ষা সময়কে হ্রাস করতে ইমেজকে  ব্যবহার করতে পারেন। ব্যবহৃত ইমেজগুলো  অবশ্যই আপনার সংস্থার লক্ষ্য এবং মানগুলির সাথে একত্রিত করতে হবে। আকর্ষণীও ইমেজ ব্যবহার করা আপনার ব্র্যান্ডের এক্সটেনশন হিসাবে কাজ করবে।

৫ – নেভিগেশন

যে ওয়েবসাইটের মাধ্যমে চলাচল করা সহজ তা হলো একটি ভাল ওয়েবসাইটের প্রয়োজনীয় বৈশিষ্ট্য। দৃশ্যমান এবং পর্যাপ্তরূপে স্থাপন বিশদ সহ একটি পরিষ্কার ডিজাইন তাদের বিভিন্ন বিভাগে অনায়াসে আরও বেশিবার ফিরে আসার সম্ভাবনা উন্নত করতে তাদের ব্রাউজ করতে সহায়তা করবে।

যথাযথ পরিকল্পনার মাধ্যমে, আপনার শ্রোতারা ইতিবাচক পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য তাদের পথটি নেভিগেট করবে যা ব্যবসাকে উপকৃত করবে।

ডিজাইনটি এমনভাবে তৈরি করতে হবে যা কোনও বিভ্রান্তি ছাড়াই পর্যাপ্ত পদক্ষেপ নিতে দ্রুত তাদের গাইড করে। এ কারণেই আপনাকে নিশ্চিত করতে হবে যে আপনার সাইটের বিশদগুলি দৃশ্যমান এবং সেগুলো  অবাধে  চলাচল করা সহজ।

৬ – ভিজ্যুয়াল এবং টাইপোগ্রাফি

ভিজ্যুয়াল এবং টাইপোগ্রাফি আপনার ওয়েবসাইট ডিজাইনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। একটি অনন্য ফন্ট শৈলীর সাথে আসল এবং সৃজনশীল ভিজ্যুয়ালগুলি আপনার ব্র্যান্ডকে একটি নির্দিষ্ট চিত্র দেবে।

বাইরে দাঁড়িয়ে, এই ভিজ্যুয়ালগুলি গ্রাহকদের সহজেই আপনার ব্র্যান্ডটিকে বাকী থেকে আলাদা করতে সহায়তা করবে। এটি কেবল গ্রাহকের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে সহায়তা করবে না, যদি ধারাবাহিকতা বজায় থাকে তবে দীর্ঘমেয়াদে ব্র্যান্ডিং এবং গ্রাহকের আনুগত্যকে আরও সহজ করে দেয়।

আপনার ওয়েবসাইট ডিজাইনে ভিজ্যুয়াল বৈশিষ্ট্যগুলি ব্যবহার করা লোককে বুঝতে সাহায্য করতে পারে যে কয়েকটি ওয়েবসাইট এমনকি আপনার ওয়েবসাইটটি কি। অতএব, ভিজ্যুয়াল উপাদান এবং টাইপোগ্রাফির সাহায্যে আপনার ওয়েবসাইটটি ডিজাইনের সময় এটি মনে রাখবেন।

৭ – ব্যবহারকারীর অভিজ্ঞতা

ব্যবহারকারী অভিজ্ঞতা ডিজাইন কি?

আপনি আপনার গ্রাহকদের একটি অর্থবহ এবং প্রাসঙ্গিক অভিজ্ঞতা প্রদানের জন্য আপনার ওয়েব ডিজাইনিং প্রক্রিয়ায় অনেকগুলি বৈশিষ্ট্য ব্যবহার করতে পারেন।

গ্রাহক পর্যালোচনা যুক্ত করা আপনার গ্রাহকের চাহিদা এবং মতামতকে কিভাবে মূল্য দেয় তা প্রতিফলিত করবে। আপনার ওয়েবসাইট ডিজাইনের ক্ষেত্রে গ্রাহকের অভিজ্ঞতাটিকে আপনার অগ্রাধিকার হিসাবে রাখা একটি সফল ওয়েবসাইট তৈরির ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়।

এ জাতীয় আরও সাধারণ দরকারি টুল ব্যবহার করে আপনি আপনার গ্রাহকদের মনে করছেন যে তাদের গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। এই জাতীয় পদ্ধতিগুলি দেখায় যে কিভাবে আপনার ব্র্যান্ডটি আপনার গ্রাহকরা সবচেয়ে সহজ এবং কার্যকর উপায়ে সন্ধান করছে সেগুলি পরিষেবা সরবরাহ করতে পারে।

৮ – গ্রাহকদের প্রয়োজন

আপনার গ্রাহকরা কি চান তা বোঝা একটি দক্ষ ওয়েবসাইট ডিজাইনের পূর্বশর্ত। গ্রাহকরা আপনার সাইট এবং পরিষেবা থেকে কি সন্ধান করছে তাতে নজর দিন।

এজন্য ব্যাপক গবেষণা জরুরি যে আবেদনকারী গ্রাহকদের সাথে সম্পৃক্ত হবার সময় বয়স, পছন্দ, আগ্রহ, প্রবণতা এবং আরও অনেক কিছু কার্যকর হয়ে থাকে ।

ওয়েবসাইট ডিজাইনের সময় এই জাতীয় উপাদানগুলোর যত্ন সহকারে বিশ্লেষণ করা উচিত এবং তারপরে প্রয়োগ করা উচিত।

এছাড়াও, এটি মনে রাখা অপরিহার্য যে কিছু গ্রাহক আপনার ব্যবসা সম্পর্কে কি তা যাচাই করে দেখার জন্য প্রথমবারের মত আপনার সাইটটি চেক করছে।

তাদের উপর উল্লেখযোগ্য প্রভাব ফেলতে একটি দুর্দান্ত ইম্প্রেশন দেওয়া অপরিহার্য ।

৯ – লোগো ডিজাইন

ভাল ডিজাইন উদ্ধৃতি

আপনার ব্যবসায়ের জন্য একটি লোগো থাকা আপনার জন্য অবশ্যই আবশ্যক এটি খেয়াল রাখবেন।  সমস্ত ব্যবসায় ওয়েবসাইটের ব্র্যান্ড উপস্থাপনের জন্য তাদের নিজস্ব লোগো রয়েছে।

এটি  আপনার ব্র্যান্ডের পরিচয় দেয় এবং এটিকে বাকিদের থেকে পৃথক করে। লোগোটি আপনার ব্যবসায়ের এবং এটির মান যথাযথভাবে প্রতিফলিত করতে পারে। এছাড়াও, আপনার নজর কাড়ানোর এবং সৃজনশীল লোগো ডিজাইন রয়েছে তা নিশ্চিত করুন।

১০ – গোছানো বিষয়বস্তু

গ্রাহকদের তথ্য সংগ্রহের সুবিধার্থে আপনার বিষয়বস্তু নিয়মিতভাবে সংগঠিত করা অপরিহার্য।

সহজেই অ্যাক্সেসযোগ্য এবং দৃশ্যমান সামগ্রীটি যে কোনও ওয়েবসাইটের লক্ষ্য হতে হবে। আপনার বিষয়বস্তুকে পৃথক ভাবে শ্রেণীবদ্ধ করা হতে পারে বিভ্রান্তি রোধের একটি কার্যকর উপায়।

প্রতিটি ব্লক আপনার ব্যবহারের জন্য সুবিধাজনক করে তুলতে একটি পরিষ্কার এবং সুসংহত পদ্ধতিতে আপনার ওয়েবসাইটটিতে অন্তর্ভুক্ত করতে চান এমন বিভাগটি প্রদর্শন করবে।

আপনার ওয়েবসাইটের সামগ্রী আপনার ব্যবসায়ের লক্ষ্যগুলির সাথে সুসংহত হওয়া উচিত। যেহেতু এটি আপনার গ্রাহকদের কাছে আপনার ব্যবসায়ের ভার্চুয়াল উপস্থাপনা হতে চলেছে, তাই আপনার সরবরাহিত বিশদটি স্পষ্টতার সাথে উপস্থাপন করা উচিত ।

যখন আপনার একটি ভাল ডিজাইনের ওয়েবসাইট রয়েছে, আপনি আপনার গ্রাহকদের উপর একটি পেশাদার এবং গভীর প্রভাব উভয়ই তৈরি করতে পারেন। অতএব, এই সমস্ত প্রয়োজনীয় বৈশিষ্ট্যগুলি যথাযথভাবে চিত্রিত করার জন্য একটি ভাল ডিজাইনের ওয়েবসাইট থাকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

আপনার ওয়েবসাইটটিতে আপনি যে সমস্ত বিবরণ রেখেছেন সেদিকে মনোযোগ দেওয়া বার্তাটি আরও স্পষ্ট করে দেওয়ার জন্য প্রয়োজনীয়।

আপনার হোমপেজ, পরিচিতির বিশদ, আইনী তথ্য ইত্যাদির মতো ছোট বিবরণ সহজেই অ্যাক্সেসযোগ্য এবং আপনার ওয়েবসাইট দর্শকদের কাছে দৃশ্যমান হওয়া উচিত।

আপনার ওয়েবসাইটের মাধ্যমে আপনার পরিষেবা এবং আপনার ব্র্যান্ডকে বাজারজাত করার জন্য মৌলিকতা এবং সৃজনশীলতা বজায় রাখা অপরিহার্য।

পণ্য বিবরণের সাথে পৃথক লিঙ্কযুক্ত পণ্যগুলির মতো প্রযুক্তিগত বিবরণগুলি আবশ্যক। যদিও আপনার ওয়েবসাইটটি আপনার ব্যবসাকে অনলাইনে বিপণনের জন্য বেশ ভালভাবে ডিল করে, তবুও আমরা আপনাকে পরামর্শ দিচ্ছি যে আপনার ব্যবসায়টিকে অফলাইনে বাড়াতে আপনি বিজনেস কার্ডের মতো চিরাচরিত টুল ব্যবহার করুন।

যে পদ্ধতিই ব্যবহার করা হোক না কেন, আপনার চূড়ান্ত লক্ষ্যটি অবশ্যই আপনার অন এবং অফলাইন বিপণন প্ল্যাটফর্মগুলির মাধ্যমে ব্যবহারকারীর অভিজ্ঞতা এবং ব্যস্ততার উন্নতি করতে হবে।

 

আপনার একটি ভাল ডিজাইন করা ওয়েবসাইট কেন দরকার?

 

কার্যকর ওয়েবসাইট ডিজাইন আপনার গ্রাহকদের সবচেয়ে কার্যকর উপায়ে আপনার পণ্য বাজারজাত করার মূল চাবিকাঠি।

আপনার ব্যবসায়ের প্রচার এবং একটি ভাল ব্র্যান্ডের পরিচয় তৈরি করা উপযুক্ত ডিজাইনের সাহায্যেই  সম্ভব ।

সর্বোপরি, এটি আপনাকে আপনার ব্যবসায় বাড়িয়ে তুলতে এবং উল্লেখযোগ্যভাবে বৃহত্তর দর্শকদের কাছে পৌঁছাতে সহায়তা করতে পারে।

একটি ব্যবহারকারী-বান্ধব ওয়েবসাইট থাকা গ্রাহকদের একটি সুন্দর অভিজ্ঞতা দিতে পারে, যাতে তারা আপনার পরিষেবাদি আরও বহুবার ব্যবহার করতে চায়।

আপনি একই সাথে আপনার ওয়েব ডিজাইনটিকে ক্রিয়েটিভ এখনও সহজবোধ্য এবং সুবিধাজনক রাখতে পারেন।

একটি সুন্দর ডিজাইন ওয়েবসাইট আকর্ষণীয় কারণ এটি সহজ এবং আপনার গ্রাহকরা সঠিক জায়গায় আছেন এমন সব তথ্য এখানে রয়েছে।

জটিল ওয়েবসাইট বুঝতে অসুবিধা গ্রাহকদের বিভ্রান্ত করে তা ব্যবহার করাতে অনীহা এনে দিতে পারে।

যদিও পরিষেবাটি আপনার ব্যবসায়ের মূল কেন্দ্রবিন্দু, একটি ভাল ডিজাইন সেই ক্ষেত্রে সহায়তা হিসাবে কাজ করতে পারে।

 

এজন্য বেশিরভাগ সু-নকশিত ওয়েবসাইট ভিজুয়াল আর্ট এবং তাদের গ্রাহকদের জড়িত করার জন্য আরও অডিও-ভিজ্যুয়াল পদ্ধতিতে তাদের সংস্থানগুলো বিনিয়োগ করে।

গ্রাহকরা এ জাতীয় পদ্ধতির মাধ্যমে আপনার প্রয়োজন অনুযায়ী আপনার পরিষেবাটি সহজেই বুঝতে পারবেন।

উপরোক্ত আলোচিত উপাদানগুলো , যেমন স্পষ্টতা, টাইপোগ্রাফি, রঙ, ইমেজ এবং ভিজ্যুয়াল ইত্যাদি একটি ওয়েবসাইট তৈরির সময় অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।